চীনের আরও ৪৭ অ্যাপ নিষিদ্ধ করল ভারত

এক মাস পূর্ণ হওয়ার আগেই চীনের বিরুদ্ধে ফের ‘ডিজিটাল স্ট্রাইক’ ভারতের। আরও ৪৭টি চীনা অ্যাপ নিষিদ্ধ করল ভারতীয় প্রশাসন। এর আগে ভারতে ৫৯টি চীনা অ্যাপকে নিষিদ্ধ করা হয়েছিল। এবার দেশটির তথ্য-প্রযুক্তি মন্ত্রণালয় চীনা অ্যাপের ক্লোন অ্যাপ এগুলোও নিষিদ্ধ করেছে। এর প্রেক্ষিতে সম্প্রতি ৪৭টি চীনা অ্যাপের বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়।

জাতীয় সুরক্ষা, সংহতি, নিরাপত্তা, সার্বভৌমত্ব রক্ষা এবং সাধারণ মানুষের তথ্য নিরাপত্তা নিশ্চিত করতেই গত ২৯ জুন টিকটক, শেয়ারইট, ইউসি ব্রাউজারসহ ৫৯ চীনা অ্যাপ তথ্য প্রযুক্তি আইনের ৬৯-এ ধারায় নিষিদ্ধ করে ভারত। তথ্য প্রযুক্তি মন্ত্রণালয় জানিয়েছিল, এই প্রক্রিয়া নিরবিচ্ছিন্নভাবে চলবে। নতুন করে ৪৭টি চীনা অ্যাপ নিষিদ্ধকরণ সেই প্রক্রিয়ারই ফলশ্রুতি বলে জানানো হয়েছে।

এক মাস আগে ভারত-চীন নিয়ন্ত্রণরেখার লাদাখ সীমান্তে দু’দেশের মধ্যে সংঘাত তীব্র ছিল। পরে সেনা, কূটনীতিক ও বিশেষ প্রতিনিধি পর্যায়ের বৈঠকে সীমান্ত পরিস্থিতি কিছুটা প্রশমিত হয়।

এর আগে জানানো হয়েছিল, ১৩০ কোটি ভারতবাসীর তথ্য সুরক্ষিত রাখার প্রশ্নে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। অ্যান্ড্রয়েড ও আইওএস প্ল্যাটফর্মে মোবাইল অ্যাপকে অপব্যবহার করে গ্রাহকদের তথ্য চুরি করা হচ্ছে এই অভিযোগ দেশটির তথ্য প্রযুক্তি মন্ত্রণালয় ওই সিদ্ধান্ত নেয়।

ভারতের ন্যাশনাল সাইবার সিকিউরিটির প্রধান রাজেশ পন্থ বলেছিলেন, ‘তথ্য কোথায় যাচ্ছে, লুকনো কোডগুলি কি, এগুলি অনুসদ্ধানের প্রযুক্তিগত উপায় রয়েছে। সেইসব খতিয়ে দেখে এবং একাধিক অভিযোগের ভিত্তিতে কেন্দ্রীয় সরকার ওইসব অ্যাপ ব্লক করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।’

Author: Faruk

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *