মা হলেন পাগলি, বাবা হলেন না কেউ

কিশোরগঞ্জের বাজিতপুরে মানসিক ভারসাম্যহীন এক নারী রাস্তায় ছেলে সন্তান প্রসব করেছেন। তার সন্তানের বাবার সন্ধান পেতে বাজিতপুর হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ বিভিন্ন স্থানে প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছেন।

গত মঙ্গলবার বিকেলে বাজিতপুর উপজেলার বলিয়ার্দী ইউনিয়নের নোয়াহাটা গ্রামের একটি রাস্তায় এ ঘটনা ঘটে।

সন্তান প্রসবের পর মানসিক প্রতিবন্ধী ওই নারীকে সন্তানসহ এলাকাবাসী উদ্ধার করে বাজিতপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের প্রসূতি বিভাগে ভর্তি করেন। বর্তমানে ওই নারী বাজিতপুর উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা ও বাজিতপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের তত্বাবধানে রয়েছেন।

বাজিতপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিক্যাল ও রোগ নিয়ন্ত্রণ কর্মকর্তা ডাঃ তাহলিল হোসেন শাওন জানান, মানসিক ভারসাম্যহীন একজন নারী মঙ্গলবার বিকেলে উপজেলার বলিয়ার্দী ইউনিয়নের নোয়াহাটা গ্রামের রাস্তায় একটি ছেলে সন্তান প্রসব করেছেন। নারীটি নিজের সম্পর্কে কিছুই বলতে পারছেন না। তার পরিচয় জানতে চাইলে তিনি শুধু স্বামীর নাম মামুন বলতে পারছেন। বাড়ি কালিয়া বা খালিয়া। বর্তমানে তিনি শিশু সন্তানসহ উপজেলা প্রশাসনের অধীনে বাজিতপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

ডাঃ শাওন আরো জানান, নারীটির ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রচারের করে তার পরিচয় শনাক্তের চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি আমরা। যদি কোনো হৃদয়বান ব্যক্তি চিনতে পারেন, তবে বাজিতপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স কর্তৃপক্ষকে জানানোর জন্য উদাত্ত আহ্বান জানাচ্ছি।

42760cookie-checkমা হলেন পাগলি, বাবা হলেন না কেউ

Author: Faruk

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *