নতুন দায়িত্বে মুশফিক

জাতিসংঘ শিশু তহবিল-ইউনিসেফ’র শুভেচ্ছদূত হতে যাচ্ছেন মুশফিকুর রহিম। এ বিষয়ে এই মুহুর্তে তার সঙ্গে প্রাথমিক আলোচনা চালিয়ে যাচ্ছে ইউনেসফ বাংলাদেশ। তবে চূড়ান্ত ঘোষণা কবে আসবে তা এখনই জানাতে পারছে না ইউনিসেফ বাংলাদেশ মিশন। হতে পারে এক সপ্তাহ কিংবা এক মাসের মধ্যে মুশিকে আনুষ্ঠানিকভাবে শুভেচ্ছাদূত ঘোষণা করবে ইউনিসেফ।

বৃহস্পতিবার (১৩ আগস্ট) এ খবরটি নিশ্চিত করেছেন ইউনিসেফ বাংলাদেশের কম্যুনিকেশন ম্যানেজার শাকিল ফয়জুল্লাহ।

তিনি জানালেন, ‘মুশফিকের সঙ্গে আমাদের মাস দুয়েক যাবৎ কথা হচ্ছে। উনি আমাদের সঙ্গে শুভেচ্ছদূত হিসেবে যোগ দিবেন। অফিসিয়াল প্রসিডিউর শেষ করে আনুষ্ঠানিকভাবে আমরা ঘোষণাটি দিব। কাউকে শুভেচ্ছাদূত মনোনিত করতে গেলে আমাদের বেশকিছু আনুষ্ঠানিকতার মধ্য দিয়ে যেতে হয়। তার বায়োডাটা, ব্যাকগ্রাউন্ড তৈরী করে আমাদেরকে সদরদপ্তর পাঠাতে হয়। সদরদপ্তর ওটা দেখে ‘গো অ্যাহেড’ দিলে পরে তারপরে আমরা ঘোষণা দেই। এখন আমাদের প্রাথমিক পর্যায়ের আলাপ আলোচনা চলছে। তবে তিনি কবে হচ্ছেন সেটা এখনই বলা যাচ্ছে না। এমন হতে পারে এক সপ্তাহ লাগতে পারে আবার এক মাসও লাগতে পারে।’

সব ঠিক থাকলে হাবিবুল বাশার সুমন, মোহাম্মদ আশরাফুল ও সাকিব আল হাসানের পরে বাংলাদেশের চতুর্থ ক্রিকেটার হিসেবে ইউনিসেফ’র শুভেচ্ছাদূত হতে যাচ্ছেন মিস্টার ডিপেন্ডেবল মুশফিকুর রহিম। সাকিব আল হাসান শুভেচ্ছদূত হিসেবে যোগ দিয়েছিলেন ২০১৩ সালে। আর হাবিবুল বাশার সুমন ও মোহাম্মদ আশরাফুল মনোনিত হয়েছিলেন ২০০৫ সালে।

Author: Faruk

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *