দক্ষিণ সুদানে বিমান বিধ্বস্ত হয়ে নিহত ১৭

দক্ষিণ সুদানের রাজধানী জুবাযর কাছে জাতিসংঘের খাদ্য সংস্থার ত্রাণ সামগ্রী পরিবহনের ভাড়া করা একটি কার্গো বিমান বিধ্বস্ত হয়েছে। ঘটনায় ১৮ আরোহীর ১৭ জনই নিহত হয়েছেন। শনিবার (২২ আগস্ট) বিমানটি জুবা আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে ওড়ার কয়েক মিনিট পরই হাই রেফারেন্ডাম আবাসিক এলাকায় বিধ্বস্ত হয়।

তুরস্কের বার্তা সংস্থা আনাদোলু নিউজ এজেন্সি কার্গো বিমান বিধ্বস্তের খবর প্রকাশ করে। বিধ্বস্ত বিমানের একজন মাত্র আরোহী জীবিত রয়েছেন এবং তাকে গুরুতর অবস্থায় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

বিমান দুর্ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী আপার নীল ইউনিভার্সিটির সহকারী অধ্যাপক জোসেপ মাইউম বলেন, “আমি যা দেখেছি তাতে একজন ব্যক্তি জীবিত আছেন এবং তাকে মারাত্মক অবস্থায় হাসপাতালে নেয়া হয়েছে। আমরা ১৫ আরোহী এবং বিমানের দুজন ক্রু সদস্যের লাশ উদ্ধার করেছি। তাতে মোট নিহত হয়েছেন ১৭ জন।”

জুবা আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের পরিচালক কার কুলের বরাত দিয়ে চীনা বার্তা সংস্থা সিনহুয়া জানিয়েছে, সকাল নয়টায় অ্যান্টোনভ এন-২৬ মডেলের কার্গো বিমানটি বিধ্বস্ত হয়। বিমানটি আভেইল এবং ওয়াও শহরে একটি সংস্থার কর্মীদের বেতন নিয়ে যাচ্ছিল। এছাড়া বিমানটিতে বেশ কিছুসংখ্যক মোটরসাইকেল, যন্ত্রাংশ ও খাদ্য সামগ্রী ছিল। তবে বিমানটিতে বেশি আরোহী ছিলেন না। কার কুল জানান, দুর্ঘটনার কারণ জানতে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে।

Author: Faruk

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *