গভীর রাতে বিয়ের আসর থেকে পালালেন বর

নীলফামারীতে পুলিশের উপস্থিতিতে বিয়ে বাড়ি থেকে পালিয়ে গেলেন বর। এমনই ঘটনা ঘটেছে শুক্রবার (২১ আগস্ট) রাত ১১টার দিকে নীলফামারী জেলা সদরের খোকশাবাড়ি ইউনিয়নের টেপুরডাঙ্গা গ্রামে।

এলাকাবাসী জানায়, ওই গ্রামের দিনমজুর আলম মিয়ার ১৫ বছর মেয়ের (রুমি আক্তার) সঙ্গে শুক্রবার বিয়ের আয়োজন করা হয় একই গ্রামের কবরস্থান পাড়ার শুকুর আলীর ছেলে আমিনুল ইসলামের। দিনে সব আয়োজন শেষে রাত ১১টার দিকে কনের বাড়িতে হাজির হন বরযাত্রী। এ সময় মুঠোফোনে বাল্য বিয়ের খবর পৌঁছে সদর থানা পুলিশের পরিদর্শক (ওসি) একে এম আজমিরুজ্জামানের কাছে। এমন খবরে তাৎক্ষণিক কনের বাড়িতে পুলিশ পাঠান ওসি। অনুষ্ঠানে পুলিশের উপস্থিতির খবর পেয়ে পালিয়ে যান যাত্রীসহ বর আমিনুল।

সদর থানার উপ-পরিদর্শক পরিতোষ রায় জানান, বাল্য বিয়ের খবরে সদর থানা পুলিশের পরিদর্শক একে এম আজমিরুজ্জামেনর নির্দেশে আমি ফোর্স নিয়ে বিয়ে বাড়িতে হাজির হই। এ সময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে বরসহ বরযাত্রীরা আগেই পালিয়ে যায়।

এ বিষয়ে নীলফামারী সদর থানা পুলিশের পরিদর্শক (ওসি) একে এম আজমিরুজ্জামান বলেন, বাল্য বিয়ের খবরে সেখানে একজন কর্মকর্তাসহ পুলিশ সদস্যদের পাঠানো হয়। পুলিশের উপস্থিতে টের পেয়ে বর ও বরযাত্রী পালিয়ে গেলে বিয়েটি বন্ধ হয়। পরে বয়স পূর্ণ না হওয়া পর্যন্ত বিয়ে না দেয়ার অঙ্গীকার করে মুচলেকা দেন কনের বাবা।

69110cookie-checkগভীর রাতে বিয়ের আসর থেকে পালালেন বর

Author: Faruk

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *